মঙ্গলবার ৭, ডিসেম্বর ২০২১
EN

ইংলিশদের চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত নিউজিল্যান্ড

আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা। এরপরই শুরু হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম সেমিফাইনাল। আবুধাবির শেখ জায়েদ স্টেডিয়ামে প্রথম সেমিফাইনালে লড়াই করবে ক্রিকেটের অন্যতম দুই শক্তিশালী দল নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। ম্যাচ শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায়।

আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা। এরপরই শুরু হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম সেমিফাইনাল। আবুধাবির শেখ জায়েদ স্টেডিয়ামে প্রথম সেমিফাইনালে লড়াই করবে ক্রিকেটের অন্যতম দুই শক্তিশালী দল নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। ম্যাচ শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায়।

সুপার টুয়েলভের পারফরম্যান্স বিবেচনায় দুদলই দারুণ ছন্দে আছে। তাই বোঝাই যাচ্ছে, প্রথম সেমিফাইনালেই তুমুল লড়াই দেখতে পারবে ক্রিকেট ভক্তরা। নকআউট পর্বে ইংল্যান্ডের চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত নিউজিল্যান্ড। ম্যাচের আগের দিন সংবাদ সম্মেলনে নিজেদের প্রস্তুতি নিয়ে তেমনটাই জানালেন কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন।  

মূল লড়াই নিয়ে উইলিয়ামসন বলেন, ‘টুর্নামেন্টটা প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক হওয়ারই কথা ছিল। প্রতি ম্যাচে একটু একটু করে উন্নতি করাটাই লক্ষ্য ছিল আমাদের। বিভিন্ন কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিয়ে সেটা ভালোই করতে পেরেছি। এ পর্যায়ে আসতে পেরে ভালো লাগছে। এখন ইংল্যান্ড চ্যালেঞ্জের জন্য প্রস্তুত। সবাই ফিট, এটাও দারুণ ব্যাপার। ছোটখাটো যেসব বিষয় সুযোগ বাড়িয়ে দেবে, সেসব করার চেষ্টা করব। রোমাঞ্চকর একটা টুর্নামেন্টে দুই দলই ভালো খেলছে। আশা করি ভালো একটা ম্যাচ হবে।’

অধিনায়ক আরো বলেন, ‘আসলে কোনো কিছুরই গ্যারান্টি নেই। অবশ্যই স্মরণীয় কিছু ম্যাচ খেলেছি। সব ভেবে সে অনুযায়ী ছোটখাটো পরিবর্তন করেছি। তবে টি-টোয়েন্টিতে যেকোনো কিছুই হতে পারে। এটা রোমাঞ্চকর, আমাদের জন্য উন্নতি করার আরেকটা ধাপ। যে সংস্করণই হোক, আমাদের সবার লক্ষ্যটা একই। এমন একটা দলের অংশ হতে পেরে নিজেকে ভাগ্যবান মনে করি। দলে অন্য নেতাও আছে। সাপোর্ট স্টাফসহ সবারই সমন্বিত একটা প্রচেষ্টা এটি। তারা(ইংল্যান্ড) খুবই শক্তিশালী দল। নিজেদের সেরা পরিকল্পনা নিয়েই নামতে হবে আমাদের। দুই দলই এ ম্যাচের জন্য অপেক্ষা করছে। অনেক দিন পর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হচ্ছে, এতে সম্পৃক্ত থাকাটা রোমাঞ্চকর। সেমিফাইনালে এসেছি, আশা করি আরেকটা ম্যাচ খেলতে পারব।’

এমআর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *