বুধবার ৮, ডিসেম্বর ২০২১
EN

করোনা প্রতিরোধে ১০ গুণ সুরক্ষা দেয় ‘কফি’ : নিউট্রিয়েন্টস

সারা বিশ্ব ভয়াবহ করোনা মহামারিতে বিপর্যস্ত। মহামারি প্রতিরোধে টিকাদান কর্মসূচি চললেও প্রয়োজনীয় সংখ্যক টিকার অভাবে বিশ্বের অনেক দেশই এক্ষেত্রে পিছিয়ে আছে।

সারা বিশ্ব ভয়াবহ করোনা মহামারিতে বিপর্যস্ত। মহামারি প্রতিরোধে টিকাদান কর্মসূচি চললেও প্রয়োজনীয় সংখ্যক টিকার অভাবে বিশ্বের অনেক দেশই এক্ষেত্রে পিছিয়ে আছে।

আর এ পরিস্থিতিতে টিকা ছাড়াও করোনা প্রতিরোধে কার্যকর কিছুর সন্ধান পেতে চলছে গবেষণা। সম্ভবত তেমন কিছুরই দেখা পেয়েছেন গবেষকরা।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, দিনে ১ কাপ করে কফি পান করলে সেটা করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ শক্তি হিসেবে ১০ গুণ বেশি কাজ করে। সাম্প্রতিক একটি গবেষণায় এই তথ্যই উঠে এসেছে বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যমটি। ‘নিউট্রিয়েন্টস’ নামক একটি জার্নালে এই গবেষণার ফল প্রকাশিত হয়।

নিয়মিত কফি খান ব্রিটেনের এমন ৪০ হাজার প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের ওপর পরীক্ষা করেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের একদল গবেষক। এরপরই পাওয়া ফলাফল অনুযায়ী করোনা প্রতিরোধে কফি ১০ গুণ সুরক্ষা দেয় বলে মনে করছেন তারা।

গবেষকরা মনে করছেন, কফির মধ্যে এমন কিছু ক্ষমতা রয়েছে যা স্বাস্থ্যের পক্ষে ভালো। শরীরের প্রতিরোধ শক্তিতে বেশ কিছু পরিবর্তন আনতে পারে কফি। যাকে বলা হচ্ছে ‘টার্বোচার্জ’। এছাড়া প্রতিদিন খাবারের তালিকায় কিছুটা শাক-সবজি থাকলে সেটাও করোনার বিরুদ্ধে একই ফলাফল দেয়।

অবশ্য চা বা ফল খেলে তেমন কিছু হেরফের হয় না জানিয়ে গবেষকরা বলছেন, যারা সসেজ ও লবণাক্ত শুষ্ক শূকর মাংসের মতো প্রক্রিয়াজাত খাবার খুব বেশি পরিমাণে খান, তাদের মধ্যে করোনার প্রভাব সবচেয়ে গুরুতর হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

অবশ্য মানুষের খাদ্যাভ্যাস নিয়ে গবেষণা এবারই প্রথম নয়। এর আগেও এই ধরনের বেশ কিছু পরীক্ষা হয়েছিল। কোন ধরনের খাবার খেলে করোনার প্রভাব সবচেয়ে বেশি পড়ছে, তাই ছিল গবেষণার মূল উদ্দেশ্য।

বিভিন্ন গবেষণায় দাবি করা হয়েছে, নিরামিষ ভোজীদের পাশাপাশি মাংসের বদলে যারা শুধু মাছ খান, তাদের প্রতিরোধশক্তিও বেশি কার্যকর।তথ্যসূত্র : ডেইলি মেইল।

এইচএন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *