সোমবার ১৭, জানুয়ারী ২০২২
EN

ধন্যবাদ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী: তারানা হালিম

মুরাদ হাসান, আপনি কর্মক্ষেত্রে যা করেছেন তা conflict of interest, আপনি যে ভাষায় কথা বলেছেন তা বিকৃত রুচির, অশালীন, নারীর প্রতি অবমাননাকর, আপনি দলের ও সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষু্ণ্ণ করেছেন, শাস্তি আপনার প্রাপ্য। রাসুলে করিম (সা.) বলেছেন, ‘ভালো মানুষ নারীকে সম্মান করে।’

তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের সঙ্গে চিত্রনায়ক ইমন ও নায়িকা মাহিয়া মাহির কথোপকথনের একটি কল রেকর্ড ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

অডিও ক্লিপটিতে শোনা যায়, নায়িকাকে অকথ্য ভাষায় গালাগাল করেন এবং হুমকি দেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান।

এরপরই ডা. মুরাদ হাসানকে নিয়ে শুরু হয় তুমুল সমালোচনা। যার পরিপ্রেক্ষিতে তাকে তথ্য প্রতিমন্ত্রীর পদ থেকে পদত্যাগ করার নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আজ মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) দুপুরেই নিজ দফতরে পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছেন ডা. মুরাদ।

এদিকে নায়িকা মাহিয়া মাহিকে নিয়ে ডা. মুরাদ হাসানের মন্তব্যের জেরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নানা রকম প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছেন অভিনেতা-অভিনেত্রীরা।

অভিনেত্রী তারানা হালিম নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক অ্যাকাউন্টে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি দিয়ে ক্যাপশনে তিনি লেখেন, “ধন্যবাদ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী।

মুরাদ হাসান, আপনি কর্মক্ষেত্রে যা করেছেন তা conflict of interest, আপনি যে ভাষায় কথা বলেছেন তা বিকৃত রুচির, অশালীন, নারীর প্রতি অবমাননাকর, আপনি দলের ও সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষু্ণ্ণ করেছেন, শাস্তি আপনার প্রাপ্য। রাসুলে করিম (সা.) বলেছেন, ‘ভালো মানুষ নারীকে সম্মান করে।’

তাই আপনি দোষী থাকবেন দুনিয়া ও আখেরাতে। আমরা যারা দলকে ভালোবাসি তারা জানি এ সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে কঠিন, কঠোর হতে হয়েছে।

কিন্তু বঙ্গবন্ধু কন্যার কাছ থেকে এটাই আশা করি আমরা। ভবিষ্যতে সব লুটেরা, ঘুসখোর, লম্পটদের বিরুদ্ধে আপনার এমন কঠোর পদক্ষেপ অব্যাহত থাকুক।

এই দৃষ্টান্ত যেন সবার জন্য শিক্ষার কারণ হয়। যখন টাইপ করছিলাম তখন শিরোনাম দিয়েছিলাম, ‘এটা অন্যায়’ জনাব মুরাদকে উদ্দেশ করে।

এর মাঝে ফোনে জানলাম ওনাকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। তাই শিরোনামটি বদলালাম। লিখলাম-ধন্যবাদ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী।”

এইচএন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *