বৃহস্পতিবার ৩০, জুন ২০২২
EN

বিভিন্ন স্থানে ভোট প্রদানে বাঁধা

ফেনী ও মুন্সিগঞ্জসহ বেশ কয়েকটি স্থানে সরকার সমর্থিত নেতাদের ভোট কেন্দ্র দখলের চেষ্টা চলছে। জানা গেছে, ফেনীর পরশুরাম এবং পশ্চিম সোনাপুরের ৫টি কেন্দ্র থেকে ১৯ দল সমর্থিত প্রার্থীর পোলিং এজেন্টদেরকে বের করে দিয়েছে সরকার সমর্থিত প্রার্থীর নেতাকর্মীরা। সকালে নির্ধারিত সময়ে ভোট শুরু হওয়ার

ফেনী ও মুন্সিগঞ্জসহ বেশ কয়েকটি স্থানে সরকার সমর্থিত নেতাদের ভোট কেন্দ্র দখলের চেষ্টা চলছে। জানা গেছে, ফেনীর পরশুরাম এবং পশ্চিম সোনাপুরের ৫টি কেন্দ্র থেকে ১৯ দল সমর্থিত প্রার্থীর পোলিং এজেন্টদেরকে বের করে দিয়েছে সরকার সমর্থিত প্রার্থীর নেতাকর্মীরা। সকালে নির্ধারিত সময়ে ভোট শুরু হওয়ার ঘন্টাখানেক পরে তাদেরকে মারধর করে বের করে দেয় স্থানীয় আওয়ামী লীগ কর্মীরা। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পশ্চিম সোনাপুরের একটি ভোট কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ শুরু হওয়ার কিছুক্ষণ পরে কয়েকটি ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায় দুর্বৃত্তরা। এসময় স্থানীয় আওয়ামী লীগ কর্মীরা এসে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থীর পোলিং এজেন্টদেরকে কেন্দ্র থেকে বের করে দেয়। কর্তব্যরত প্রিসাইডিং অফিসার ড. আহসান উল্লাহ ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা স্বীকার করলেও এজেন্টদেরকে বের করে দেওয়ার কথা জানেন না বলে জানান। তিনি বলেন,  আমি ককটেল বিস্ফোরণের বিষয়টি প্রশাসনকে জানিয়েছি। এদিকে পরশুরাম উপজেলার ভনুকুন্ঠা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, উত্তর কেতরাঙ্গা মাদ্রাসা, দক্ষিণ কেতরাঙ্গা জুনিয়র উচ্চবিদ্যালয়, দক্ষিণ গোথুমা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্র থেকে জোরপূর্বক ১৯ দল সমর্থিত প্রার্থীর পোলিং এজেন্টদেরকে বের করে দিয়েছে আওয়ামী লীগ কর্মীরা। এছাড়া পশ্চিম সোনাপুরের ফেনী বালিকা বিদ্যানিকেতন, বিরিনসি সুফিয়া নুরিয়া মাদ্রাসাসহ বেশ কয়েকটি কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি একবারেই কম। কেন্দ্রের বাইরে বিরোধী দলীয় নেতাকর্মীদেরকে ভোট প্রদানে বাধা দেওয়া হয়েছে বলে এসব কেন্দ্রগুলোতে উত্তেজনা বিরাজ করছে। মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে বিভিন্ন ভোট কেন্দ্রে আওয়ামী ক্যাডাররা বিএনপি সমর্থকদের ভোট প্রদানে বাধা দিচ্ছে। বিএনপি সমর্থিত প্রার্থীর কর্মীরা অভিযোগ করে বলেন, ভোট গ্রহণের শুরুতেই আওয়ামী সমর্থিত উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী সেলিম ভুঁইয়ার সমর্থকরা কেন্দ্রে কেন্দ্রে অবস্থান নিয়ে বিএনপি সমর্থকদের ভোট কেন্দ্রে প্রবেশ ও ভোটদানে বাধা দিচ্ছে। সকাল ৯টার দিকে ভাগ্যকূল হরেন্দ্রলাল উচ্চ বিদ্যালয় ও হাসুয়া ইউনিয়নের লস্কর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ চিত্র দেখা গেছে। কেন্দ্র দু’টিতে যেতে বাধা দেয়া হয়েছে বলে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী হাজি মমিন আলীর কয়েকজন কর্মী অভিযোগ করেন। তারা বলেন, এমনকি মহিলাদের লাইন থেকে বের করে দেয়া হয়েছে। এ নিয়ে  উত্তেজনাকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে। [b]ঢাকা,এএ,২৭ফেব্রুয়ারি,(টাইমনিউজবিডি)//এসএইচ[/b]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *