সোমবার ১৭, জানুয়ারী ২০২২
EN

বিশ্বের যে কোন জায়গায় চাঁদ দেখা গেলেই ঈদ উদযাপনের আহ্বান

বিশ্বের যে কোন জায়গায় চাঁদ দেখা গেলে তার ভিত্তিতে একই দিনে রোজা, ঈদ ও কোরবানি উদযাপনের আহ্বান জানিয়েছেন দেশের আলেম ওলামা, দার্শনিক ও পরমাণু বিজ্ঞানীরা।

বিশ্বের যে কোন জায়গায় চাঁদ দেখা গেলে তার ভিত্তিতে একই দিনে রোজা, ঈদ ও কোরবানি উদযাপনের আহ্বান জানিয়েছেন দেশের আলেম ওলামা, দার্শনিক ও পরমাণু বিজ্ঞানীরা। বিকেলে রাজধানীর একটি মিলনায়তনে একই দিনে সমগ্র বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে ঈদ পালন করার শরীয়া বিধান ও যৌক্তিকতা বিষয়ক সেমিনারে এ আহবান জানান তারা। এসময় তারা পুরনো রীতি ধরে রাখার নামে কোরআন হাদিসকে উপেক্ষা না করারও আহবান জানান।

নিজ দেশের আকাশে চাঁদ দেখে নাকি বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে রোজা ও ঈদ পালন- এ নিয়ে অনেক বছর ধরেই বাংলাদেশের আলেম সমাজের মাঝে মতবিরোধ চলে আসছিলো।

বিশ্বের সাথে মিল রেখে একই দিনে রোজা ও ঈদ পালন করার পক্ষে কোরআন হাদিসের নানা যুক্তিসহ শনিবার বিকেলে সেমিনারের আয়োজন করে চান্দ্রমাসের সঠিক তারিখ বাস্তবায়ন জাতীয় কমিটি। সেমিনারে বক্তারা দাবি করেন, আগে প্রযুক্তির সহায়তা না থাকায় বিশ্বব্যাপী ভিন্ন দিনে ঈদ উদযাপন করা হতো। কিন্তু এখন প্রযুক্তির কল্যাণে বিশ্বব্যাপী একই দিন ঈদ পালন করলেও গোঁড়ামির কারণে তা থেকে পিছিয়ে আছে শুধু বাংলাদেশই।

পৃথিবীতে নতুন চাঁদ একটাই এবং সমগ্র মানবজাতিও এক; দাবি করে দার্শনিক ও পরমাণু বিজ্ঞানীরা বলেন, বিশ্বের সঙ্গে তাল না মিলিয়ে আলাদাভাবে ঈদ পালন করার জন্য মূলত দায়ী জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটি।

আসন্ন কুরবানির ঈদের আগেই বিষয়টি সরকারকে গুরুত্বের সাথে বিবেচনারও আহবান জানান বক্তারা।

কেবি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *