সোমবার ৬, ডিসেম্বর ২০২১
EN

সড়ক দুর্ঘটনা, গত ৭ মাসে নিহত ৩০৯৫

নিরাপদ সড়ক চাই'-এর চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, ২০১৬ সালের পর সারাদেশে মোটরসাইকেলের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় সড়ক দুর্ঘটনা বেড়েছে।

সারা বাংলাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ও নিহতের সংখ্যা দিন দিন বেড়েই চলেছে।

পুলিশের এক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে, চলতি বছরের ৭ মাসে সড়ক দুর্ঘটনায় ৩ হাজার ৯৫ জন নিহত হয়েছে।

যা ২০২০ সালের তুলনায় অনেক বেশি মানুষ সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছে।

নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত থাকা কয়েকজন মনে করছেন, করোনা মহামারিতে সড়কে বাস-মিনিবাস বন্ধ থাকায় মোটরসাইকেল ও ৩ চাকার যানবাহন চলাচল করায় সড়ক দুর্ঘটনা বেশি ঘটেছে।

এ কারণে গত ৭ মাসেই সড়ক দুর্ঘটনায় গত বছরের তুলনায় বেশি মানুষ মারা গেছেন।

পুলিশের প্রতিবেদনে দেখা যায়, চলতি বছরের ৭ মাসের মধ্যে মে মাসেই সর্বোচ্চ সড়ক দুর্ঘটনা ঘটেছে।

বিগত বছরের ১ম সাত মাসে ২ হাজার ২শ’ ১১ জন সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলেও চলতি বছরের প্রথম ৭ মাসে এ সংখ্যা বেড়ে ৩ হাজার ৯৫ জন হয়েছে।

জানা যায়, করোনার কারণে মহাসড়কে বেশকিছু দিন বাস ও মিনিবাস বন্ধ থাকায় ইজিবাইক, মোটরসাইকেল, ব্যক্তিগত গাড়িসহ বিভিন্ন ছোট যানবাহন চলেছে। এতে সড়কে দুর্ঘটনা বেড়েছে।

ব্যস্ত মহাসড়কে মালবাহী যানবাহনের চলাচল অব্যাহত থাকায় সংঘর্ষ ও মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে।

উল্লেখ্য, গত ২৩ মে বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতি জানায়, ঈদের সময় দূরপাল্লার বাস চলাচল বন্ধ থাকলেও, ১৫ দিনে ৩১৮টি সড়ক দুর্ঘটনায় অন্তত ৩২৩ জন নিহত হয়েছেন।

নিরাপদ সড়ক চাই'-এর চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, ২০১৬ সালের পর সারাদেশে মোটরসাইকেলের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় সড়ক দুর্ঘটনা বেড়েছে।

সম্প্রতি মোটরসাইকেল দুর্ঘটনাই সবচেয়ে বেশি ঘটছে।

এইচএন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *