বুধবার ১৯, জানুয়ারী ২০২২
EN

স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা হত্যা, শুটার রাসেল গ্রেপ্তার

স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা নাজমুল হাসান অরেঞ্জকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যার ঘটনায় প্রধান আসামি শুটার রাসেলকে রাজধানীর বনানী থেকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব।

স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা নাজমুল হাসান অরেঞ্জকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যার ঘটনায় প্রধান আসামি শুটার রাসেলকে রাজধানীর বনানী থেকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব।

আজ মঙ্গলবার ( ১১ জানুয়ারি) এ তথ্য জানা গেছে।

এর আগে গতকাল সোমবার (১০ জানুয়ারি) দিনগত রাত ১১টার দিকে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালের ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান অরেঞ্জ।

ওই হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডাঃ আব্দুল ওয়াদুদ জানান, গত ২ জানুয়ারি রাতে ভর্তির পরপরই অরেঞ্জকে আইসিইউতে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল।

বগুড়া শহরের মালগ্রামে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে স্বেচ্ছাসেবক লীগের দুই গ্রুপের বিরোধের গত ২ জানুয়ারি রাতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে স্বেচ্ছাসেবক লীগের জেলা কমিটির সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক বিষয়ক সহসম্পাদক নাজমুল হাসান অরেঞ্জ এবং তার সহযোগী একই সংগঠনের ওয়ার্ড কমিটির নেতা মিনহাজ হোসেন আপেল (২৮) আহত হন।

সন্ত্রাসীদের ছোঁড়া গুলি অরেঞ্জের চোখের নিচে এবং আপেলের পেটে লাগে। গুরুতর আহত অরেঞ্জকে পরে শজিমেক হাসপাতালের আইসিউইতে নেওয়া হয়। আর ওই হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা শেষে আপেল বাড়ি ফিরে যান।

ওই ঘটনার পরদিন অরেঞ্জের স্ত্রী স্বর্নালী আক্তার মালগ্রামের একরাম হোসেনের ছেলে রাসেল আহমেদ (৩২), তার ছোট ভাই রাছানীসহ (২৭) ৭ জনের নাম উল্লেখ করে মোট ১২ জনের বিরুদ্ধে বগুড়া সদর থানায় মামলা করেন। পরে পুলিশ ওই মামলার এজাহারভুক্ত ৭ নম্বর আসমি টিপুকে গ্রেপ্তার করে।

এইচএন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *