বুধবার ১৯, জানুয়ারী ২০২২
EN

সীমান্তে বিএসএফ’র গুলি, বাংলাদেশি নিহত

নওগাঁ জেলার সাপাহার উপজেলার হাঁপানিয়া সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)’র গুলিতে সালাউদ্দীন ওরফে মকবুল (২৬) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে।

নওগাঁ জেলার সাপাহার উপজেলার হাঁপানিয়া সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)’র গুলিতে সালাউদ্দীন ওরফে মকবুল (২৬) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে।

আজ শনিবার ( ৮ জানুয়ারি) ভোর ৪টার দিকে উপজেলার হাঁপানিয়া সীমান্তের মেইন পিলারের পাশে ২৩৬ /১ সাব পিলার এলাকায় ঘটনাটি ঘটে । নিহত সালাউদ্দীন ওরফে মকবুল উপজেলার কৃষ্ণসদা গ্রামের আলাউদ্দীন (বুদুর)’র ছেলে বলে জানা গেছে।

এলাকাবাসী ও নিহতের স্বজনরা জানান, গতকাল শুক্রবার ( ৭ জানুয়ারি) দিবাগত রাতে স্থানীয় কয়েকজন গরু ব্যবসায়ীর সাথে সালাউদ্দীন গরু নেয়ার জন্য ভারত অভ্যন্তরে প্রবেশ করেন। পরে শনিবার ভোররাতে তারা ফিরে আসার পথে ভারত সীমান্তের ২শ’ গজ অভ্যন্তরে পশ্চিমবঙ্গের হবিবপুর থানার পান্নাপুর ৬৯ বিএসএফ’র নম্বর টহল দল পাচারকারীদের উদ্দেশে গুলি ছোড়ে।

এসময় সালাউদ্দীন ওরফে মকবুল গুলি বিদ্ধ হয়। এ সময় তার সঙ্গীরা পালাতে সক্ষম হলেও তার ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়। বিষয়টি সকালে স্থানীয় লোকজন জানতে পারলে সালাউদ্দীনের মৃতদেহ ভারত ভূ-খন্ডের অভ্যন্তরে পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয়রা।

মৃত সালাউদ্দীন ওরফে মকবুলের মা বলেন, শুক্রবার দিবাগত রাত ১০টার দিকে তার ছেলে ট্রলিতে করে গমের বস্তা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। যাবার সময় রাতে ফিরবে না বলেও জানায়। তারা দরজা লাগিয়ে ঘুমিয়ে পড়ে। সকালে স্থানীয় লোকজন মারফত তিনি ছেলের মৃত্যুর খবর জানতে পান।

এই ঘটনায় সাপাহার থানা পুলিশ ও স্থানীয় গোয়ালা ইউনিয়ন পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যন কামরুজ্জামান সহ বর্তমান চেয়ারম্যান মোখলেসুর রহমান মুকুল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

এ বিষয়ে উপজেলার হাঁপানিয়া বিজিবির ক্যাম্প কমান্ডার আব্দুল আজিজ ভারতের অভ্যন্তরে এক যুবকের গুলিবিদ্ধ লাশ পড়ে থাকার কথা স্বীকার করে বলেন, এ বিষয়ে পান্নাপুর বিএসএফ ক্যাম্পে পতাকা বৈঠকের জন্য বার্তা পাঠানো হয়েছে।

তবে বিএসএফ এখন পর্যন্ত কোন সাড়া দেয়নি। এ কারণে মরদেহ কার তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সালাউদ্দীন ওরফে মকবুলের মরদেহ ভারত অভ্যন্তরেই পড়েছিলো।

এইচএন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *